শনিবার ২০ জানুয়ারি, ২০১৮, রাত ০৯:০৯

১২ উদ্যোক্তা পেলেন সিটি ফাউন্ডেশনের পুরস্কার

Published : 2017-04-15 19:52:00
অনলাইন ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক আর্থিক প্রতিষ্ঠান সিটিগ্রুপের মানবকল্যাণ সংগঠন সিটি ফাউন্ডেশনের ১২তম সিটি ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা পুরস্কার’ এর চূড়ান্ত বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করেছে। দুটি ঋণদাতা প্রতিষ্ঠানসহ ১২ জন উদ্যোক্তা এই পুরস্কার হাতে পেয়েছেন।

শনিবার (১৫ এপ্রিল) রাজধানীর ওয়েস্টিন হোটেলে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে উদ্যোক্তাদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।

এ বছর ৬ ক্যটাগরিতে ৬ জনকে বিজয়ী, ৪ জনকে প্রথম রানার আপ ও বাকি ৪ জনকে দ্বিতীয় রানার আপ পুরস্কার দেওয়া হয়।

বিভিন্ন ক্যাটাগরির মধ্যে- 'শ্রেষ্ঠ ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা' বিভাগে বিজয়ী হয়েছেন নওগাঁর শালুকার মো. জিল্লুর রহমান চৌধুরী, এতে তিনি সাড়ে চার লাখ টাকার পুরস্কার লাভ করেন। এই বিভাগে প্রথম রানার-আপ হয়েছেন বগুড়া শেরপুরের মো. সাইদুজ্জামান সরকার এবং দ্বিতীয় রানার-আপ বরগুনা তালতলীর মো. আজিজুল হক সিকদার।

'শ্রেষ্ঠ নারী ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা' বিভাগে বিজয়ী হয়েছেন মুন্সীগঞ্জ সদরের বজ্রযোগিনীর মো. রুমা আক্তার। তাকে সাড়ে তিন লাখ টাকার পুরস্কার প্রদান করা হয়। এই বিভাগে প্রথম রানার-আপ হয়েছেন ঢাকা মোহাম্মদপুরের ফজিলাতুন নেছা এবং দ্বিতীয় রানার-আপ চট্টগ্রাম দামপাড়ার রুবামা শারমিন।

'শ্রেষ্ঠ তরুণ ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা' বিভাগে বিজয়ী হয়েছেন সাভার আশুলিয়া থেকে মো. রুবেল দেওয়ান। তাকে সাড়ে তিন লাখ টাকার পুরস্কার প্রদান করা হয়। এই বিভাগে প্রথম রানার-আপ হয়েছেন গাইবান্ধা গোবিন্দগঞ্জের মোছা. রহিমা খাতুন (মুক্তা) এবং দ্বিতীয় রানার-আপ হয়েছেন পাবনা বেড়ার মো. তাইফুর রহমান রাজু।

'শ্রেষ্ঠ কৃষি ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা' বিভাগে বিজয়ী হয়েছেন সাতক্ষীরা শ্যামনগরের সায়মা খাতুন। বিজয়ী হিসেবে তিনি সাড়ে তিন লাখ টাকার পুরস্কার লাভ করেন।এই বিভাগে শ্যামনগর প্রথম রানার-আপ হয়েছেন দিনাজপুর খানসামার মো. আলতাফ হোসেন এবং দ্বিতীয় রানার-আপ শরীয়তপুর জাজিরার মো. নুরুল আমিন সরদার।

এছাড়া শ্রেষ্ঠ ক্ষুদ্র ঋণ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে পুরস্কার লাভ করেছে পিপলস ওরিয়েন্টেড প্রোগ্রাম ইমপ্লিমেন্টেশন (পপি) এবং শ্রেষ্ঠ সৃজনশীল ক্ষুদ্রঋণ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে পুরস্কার পেয়েছে ভিলেজ এডুকেশন রিসোর্স সেন্টার (ভার্ক)।

এসব ক্যাটাগরির মধ্যে ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা বিভাগে বিজয়ীকে সাড়ে ৪ লাখ টাকা ও বাকি তিন ক্যাটাগরির বিজয়ীকে সাড়ে ৩ লাখ টাকার চেক দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া সব ক্যাটাগরির প্রথম রানার আপকে দেড় লাখ টাকা ও দ্বিতীয় রানার আপকে এক লাখ টাকার চেক দেওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে সকল বিজয়ীদের হাতে সম্মাননা সনদ ও ক্রেস্ট তুলে দেওয়া হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন সিটি ব্যাংক এনএ বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিটি কান্ট্রি অফিসার রাশেদ মাকসুদ, সাজেদা ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক জাহেদা ফিজ্জা কবীর এবং ক্রেডিট অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট ফোরামের নির্বাহী পরিচালক আবদুল আউয়াল প্রমুখ।