শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮, সকাল ০৯:৫২

আবারো জেব্রা শাবকের জন্ম

বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্কে আনন্দ উল্লাস

Published : 2018-02-08 16:48:00
ছবি : রেজাউল করিম সোহাগ সাফারি পার্কে আরেক সাফল্য মিলেছে। পার্কের উন্মুক্ত আফ্রিকান সাফারি বেষ্টনীতে জেব্রা দম্পত্তি এক শাবকের জন্ম দিয়েছে। এ নিয়ে সাফারি পার্কে বেশ কিছু বিরল বড় প্রাণি শাবকের জন্ম দিল। ক্যাঙ্গারু থেকে শুরু করে বাঘ,সিংহ,ময়ূর,উট পাখি, সোয়ান,কালিম,মায়া হরিন বাচ্চা দিয়েছে।

আবার দ্বিতীয় বারের মতো নতুন অতিথির জন্ম হলো জেব্রা পরিবারে। গাজীপুরের শ্রীপুরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে সম্প্রতি দ্বিতীয় বারের মত এক জেব্রা শাবকের জন্ম হলো।

এ নিয়ে আরেক সাফল্য সবাইকে আনন্দিত করেছে। শাবকের দুরন্তপনায় মুগ্ধ আফ্রিকান সাফারিতে ঘুরতে আসা দর্শনাথীরা। চঞ্চল আর দুরন্তপনায় মা বাবার সঙ্গে ঘুরে বেড়াচ্ছে জেব্রা শাবকটি।

পার্ক কতৃপক্ষ জানানর, ২০১৩ সালের পর থেকে কয়েক দফায় দক্ষিণ আফ্রিকার জোহানসবার্গ থেকে পশু পাখি আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান ফ্যালকন ট্রেডার্সের মাধ্যমে জেব্রাগুলো আনা হয় পার্কে। এখন বড় পাঁচটি পুরুষ ও ছয়টি নারী জেব্রা রয়েছে। পার্কের অফ্রিকান সাফারি বেষ্টনীতে অবাধে বিচরণ করছে জেব্রাগুলো।

এ বেষ্টনীতে গয়াল,অরিক্স,সাম্বার হরিণ, চিত্রা হরিণসহ আরো বেশ কিছু আফ্রিকান প্রাণি বসবাস করে। শাবকের দুরন্তপনায় মুগ্ধ আফ্রিকান সাফারি অঞ্চলের আসা দর্শনাথী। মায়ের সঙ্গে ঘুরে বেড়াচ্ছে সদ্য জন্ম নেওয়া শাবকটি।

সাফারি পার্কের ওয়াইল্ড লাইফ সুপার ভাইজার আনিসুর রহমান জানান, পার্কে আফ্রিকান সাফারিতে, জেব্রার সাথে আরো রয়েছে অরিক্স,ওয়াইলবিস্ট,জিরাফ,গ্যাজেল কমনইলান্দ গভীর অরন্যে অবাধে বিচরণ করে। এ সব উন্মুক্ত প্রাণি দর্শনার্থীরা সুরক্ষিত গাড়িতে করে খুব কাছ থেকে দেখতে পায়। তিনি বলেন, অতিথি শাবকের আগমনে পার্কের আকর্ষণ ক্রমেই বেড়ে চলছে ।

এখন পার্কে শাবকসহ ১৩ টি জেব্রা হলো। গত বছরের মে মাসের মাঝামাঝি প্রথম জেব্রা শাবকের জন্ম হয় এ সাফারি পার্কে। নিবিড় পর্যবেক্ষনের মাধ্যমে আবারও একটি জেব্রা শাবকের জন্ম নিল পার্কে।

সাফারি পার্কের অপর ওয়াইল্ডলাইফ সুপারভাইজার সরোয়ার হোসেন খান বলেন, শাবকসহ তার মা বেশ সুস্থ সবল রয়েছে। তবে নিরাপত্তাজনিত কারণে কাউকে বাচ্চার কাছে যেতে দেওয়া হচ্ছে না।

তিনি জানান, জেব্রা শাবক ৭-৮ মাস মায়ের দুধ পান করে । তবে সপ্তাহ খানেক পরেই একটু একটু করে ঘ্রাস ক্ষেতে শুরু করবে শাবকটি। জেব্রা ১২-১৩ মাস গর্ভকালীন সময় পার করে। প্রকৃতিতে ২০ বছর আবদ্ধ জোন (ক্যাপটিবে) ৪০ বছর পযর্ন্ত বেঁচে থাকে জেব্রা। জেব্রা সাধারনত একটি বাচ্চাই প্রসব করে। আফ্রিকা অঞ্চলের, সুদান, জিম্বাবুয়েসহ উত্তর আমেরিকা পযর্ন্ত জেব্রাদের আবাসস্থল রয়েছে।

পার্কের ভারপ্রাপ্তকর্মকর্তা মোতালেব হোসেন বলেন, জেব্রা শাবক স্বাভাবিক ভাবেই মায়ের দুধ পান করছে। জন্ম নেওয়ার পর  থেকেই শাবক লাফালাফি,দুরন্তপনায় পুরো আফ্রিকা সাফারি অঞ্চল মাতিয়ে রেখেছে। জেব্রা শাবকের জন্মে আরেকটি সাফল্য মিলল পার্কের সকলের আন্তরিকতায়। এ আনন্দ সকলের প্রচেষ্টার সফলতা।