শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮, সকাল ০৮:৪৭

প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগে এসএসসির বাংলা পরীক্ষা বাতিলের সিদ্ধান্তে কমিটি গঠন

Published : 2018-02-04 16:10:00, Updated : 2018-02-04 18:06:52
অনলাইন ডেস্ক : এসএসসির প্রথম পরীক্ষার 'বাংলা প্রথম পত্র' প্রশ্ন ফাঁস হওয়ার পর দ্বিতীয় দিনের বাংলা দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁস হয়েছে। আর ফাঁস হওয়া প্রশ্নেই শনিবার বাংলা দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

রোববার (৪ ফেব্রুয়ারি) বাংলা প্রথম ও দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষা বাতিলের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে কমিটি গঠন করা হয়েছে বলে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা যায়। রে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত এক বৈঠক শেষে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ এ তথ্য জানান।

শিক্ষামন্ত্রী জানান, যে দু’টি বিষয়ে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে, দু’টি বিষয়ের প্রশ্নপত্র ফাঁস হয়েছে কিনা, তা যাচাই-বাছাই করে দেখতে ১১ সদস্যের ‘পরীক্ষা মূল্যায়ন কমিটি’ গঠন করা হয়েছে।

তিনি বলেন, কমিটির প্রধান থাকবেন কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. আলমগীর এবং মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের একজন কর্মকর্তা হবেন সদস্য সচিব। এছাড়া ৮ শিক্ষা বোর্ডের সমন্বিত প্রতিনিধি, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের ১ জন, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের ১ জন, বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থার (বিটিআরসি) ১ জন, পুলিশের ২ জন, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ১ জন জন কমিটির সদস্য হিসেবে থাকবেন।

এ সময়  প্রশ্নপত্র ফাঁসকারীদের ধরিয়ে দিতে ৫ লাখ টাকা পুরস্কার ঘোষণাও করেছেন শিক্ষামন্ত্রী।

এর আগে দেশব্যাপী চলমান এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার বাংলা প্রথম ও দ্বিতীয় পত্রের প্রশ্নপত্র ফাঁস হয় বলে অভিযোগ ওঠে।

পরীক্ষা শুরুর আগে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছিলেন, প্রশ্নপত্র ফাঁস ঠেকাতে ‘সব ধরনের পদক্ষেপ’ নেওয়া হয়েছে। প্রশ্ন ফাঁস হয়েছে প্রমাণ পেলে সঙ্গে সঙ্গে পরীক্ষা বাতিল করার ঘোষণাও দিয়েছিলেন তিনি।

সর্বশেষ সংবাদ