বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮, দুপুর ০১:১৭

খালেদা জিয়া জামায়াতকে নিয়ে ভূতের সরকার কায়েম করতে চান : ইনু

Published : 2018-02-03 23:12:00
(ফাইল ছবি) অনলাইন ডেস্ক : জাসদ সভাপতি ও তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, বেগম খালেদা জিয়া স্বাধীনতা বিরোধী জামায়াতকে সাথে নিয়ে দেশে ভূতের সরকার কায়েম করতে চান।

তিনি বলেন, ‘নির্দলীয় সরকারের নামে অস্বাভাবিক পরিস্থিতি সৃষ্টি করে বেগম খালেদা জিয়া আগামী সংসদ নির্বাচন বানচাল করতে চান। খালেদা জিয়া সহায়ক সরকার ব্যবস্থার কথা বলে দেশের মানুষকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা চালাচ্ছেন। অথচ তিনি ৯ বছরেও সহায়ক সরকারের রূপরেখা দিতে পারেননি।’

মন্ত্রী আজ বগুড়ার কাহালু উপজেলার বীরকেদার ইউনিয়নের শেকাহার উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে কাহালু উপজেলা জাসদ আয়োজিত এক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতা করছিলেন।
 
জাসদ কাহালু উপজেলা শাখার সভাপতি আশরাফ আলী খাঁন আজাদের সভাপতিত্বে এবং জাসদ নেতা সিদ্দিকুল আলম মামুনের সঞ্চালনায় সভায় বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন জাতীয় নারী জোটের আহ্বায়ক ও জাসদের সহ-সভাপতি আফরোজা হক রীনা, প্রধান বক্তা ছিলেন এ.কে.এম রেজাউল করিম তানসেন এম.পি।

হাসানুল হক ইনু বলেন, বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া দেশবাসীর উদ্দেশ্যে যে ৬ দফা দাবী তুলে ধরেছেন এটা নির্বাচন বন্ধ করার চক্রান্ত ছাড়া আর কিছুই নয়। জাসদ সভাপতি তার ৬ দফা দাবী প্রত্যাখান করে বলেন, খালেদার উত্থাপিত ৬ দফা সংবিধান বিরোধী। এটা কোনভাবেই দেশবাসী মেনে নিতে পারে না।

তিনি বলেন, ‘খালেদা মুখে গণতন্ত্রের কথা বললেও গণতন্ত্রের প্রতি তার বিন্দুমাত্র আন্তরিকতা নেই। তিনি এদেশকে বিশৃংখলার দিকে ঠেলে দিতে তার সঙ্গী যুদ্ধাপরাধী রাজাকার জামায়াত ও পাকিস্তানীদের নিয়ে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছেন। 

তিনি বলেন, জাসদ দেশে কোন জঙ্গিবাদকে প্রশ্রয় দেয়না, জাসদ মানুষের ৫টি মৌলিক অধিকারসহ বৈষম্য দূর করার লক্ষ্যে রাজনীতি করে যাচ্ছে। তবে দেশে শান্তি চাইলে আগামী নির্বাচনে ১৪ দলীয় জোট সরকারকে আবার ক্ষমতায় আনতে হবে।