মঙ্গলবার ২৩ জানুয়ারি, ২০১৮, সকাল ০৮:০২

প্রাণিসম্পদমন্ত্রী ছায়েদুল হকের প্রথম জানাজা সম্পন্ন

Published : 2017-12-16 10:52:00, Updated : 2017-12-17 10:31:55

অনলাইন ডেস্ক : প্রাণিসম্পদমন্ত্রী ছায়েদুল হকের প্রথম জানাজা সম্পন্ন হয়েছে । রোববার (১৭ ডিসেম্বর) সকাল সাড়ে ৯টায় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় মন্ত্রীর প্রথম নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়েছে । 

এর আগে শনিবার (১৬ ডিসেম্বর) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাজধানীর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে (বিএসএমএমইউ) মারা যান মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী ছায়েদুল হক। (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন) ।  মরদেহ তার নর্বাচনী আসন ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ নাসিরনগর উপজেলায় নেয়া হবে। সেখানেই তার দাফন করা হবে বলে জানা গেছে।

মন্ত্রী ছায়েদুল হক দীর্ঘদিন ধরে জ্বর, ইউরিন ইনফেকশন ও শারীরিক দুর্বলতায় ভুগছিলেন। তিনি আগস্ট মাস থেকে প্রোস্টেট গ্লাণ্ডের সংক্রমণে ভুগছিলেন এবং ১৩ ডিসেম্বর থেকে হাসপাতালের আইসিইউ-এর ১৬ নম্বর বেডে লাইফ-সাপোর্টে ছিলেন।

মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ও একমাত্র পুত্রসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন এবং গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তার একমাত্র পুত্র ডা. এ এস এম রায়হানুল হক ঢাকা মেডিকেল কলেজে প্রভাষক হিসেবে কর্মরত আছেন।

মন্ত্রী ছায়েদুল হক ১৯৭৩, ১৯৯৬, ২০০১, ২০০৮ ও ২০১৪ সালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ (নাসিরনগর) আসন থেকে মোট পাঁচবার এমপি নির্বাচিত হয়েছিলেন। তিনি ২০১৪ সালের ১২ জানুয়ারি মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বভার নিয়ে মৃত্যুর আগ পর্যন্ত সে দায়িত্ব পালন করেন। এর আগে তিনি খাদ্য, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতিও ছিলেন।

ছায়েদুল হক ১৯৬৬ সালে বঙ্গবন্ধুর ৬ দফা আন্দোলনের ঘনিষ্ঠ সহযোগী এবং ১৯৬৮ সালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি কলেজের নির্বাচিত ভিপি ছিলেন। তিনি ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধেও সক্রিয় ছিলেন এবং ১৯৭৩ সালে প্রথমবারের মতো নাসিরনগর থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।