মঙ্গলবার ২৩ জানুয়ারি, ২০১৮, রাত ০৪:১১

লেকহেড গ্রামার স্কুল আরও ৭ দিন বন্ধ থাকছে

Published : 2017-12-05 10:36:00

অনলাইন প্রতিবেদক : লেকহেড গ্রামার স্কুলের বিষয়ে ৭ দিনের মধ্য পরিচালনা পরিষদ গঠন করার জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত । মঙ্গলবার (৫ ডিসেম্বর) ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহ্হাব মিয়ার নেতৃত্বাধীন পাঁচ বিচারপতির আপিল বেঞ্চ এ নির্দেশ দেন ।

বুধবার (১৫ নভেম্বর) লেকহেড গ্রামার স্কুল ২৪ ঘণ্টার মধ্যে খুলে দেওয়ার আদেশ স্থগিত করেছেন হাইকোর্টের চেম্বার আদলাত । এর আগে মঙ্গলবার (১৪ নভেম্বর) সকালে লেকহেড গ্রামার স্কুল ২৪ ঘণ্টার মধ্যে খুলে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট ।

বিচারপতি সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি মো. আতাউর রহমান খানের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ নির্দেশ দেন । রায়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে দেওয়া স্কুলটি বন্ধের নোটিশকে অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে । ধানমণ্ডির ৬/এ সড়কে প্রতিষ্ঠিত হয় লেকহেড গ্রামার স্কুল । গুলশানে এই স্কুলের আরো দুটি শাখা আছে । সোমবার লেকহেড গ্রামার স্কুলের সব শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধের বিরুদ্ধে জারি করা রুলের শুনানি শেষে রায়ের জন্য আজকের দিন ধার্য করেন আদালত ।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন এ এফ হাসান আরিফ, ব্যারিস্টার আকতার ইমাম ও রাশনা ইমাম । রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। ৯ নভেম্বর রাজধানীর ধানমণ্ডি ও গুলশানের দুটি শাখাসহ লেকহেড গ্রামার স্কুলের সব শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধ করা কেন অবৈধ হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেন হাইকোর্ট । এরপর লেকহেড গ্রামার স্কুলের নতুন মালিক খালেদ হাসান মতিন ও ১২ শিক্ষার্থীর অভিভাবকের পক্ষে ব্যারিস্টার রাশনা ইমাম রিট দায়ের করেন। জঙ্গি কার্যক্রমে পৃষ্ঠপোষকতা, ধর্মীয় উগ্রবাদে উৎসাহ দেয়াসহ কয়েকটি অভিযোগে ৬ নভেম্বর শিক্ষা মন্ত্রণালয় ঢাকায় লেকহেড গ্রামার স্কুল বন্ধের নির্দেশ দেয় শিক্ষা মন্ত্রণালয় । শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব সালমা জাহানের সই করা চিঠিতে ঢাকা জেলা প্রশাসককে এ নির্দেশ দেওয়া হয় ।