সোমবার ২৩ অক্টোবর, ২০১৭, রাত ১১:১৭

দুর্গা পূজার সাজ

Published : 2017-09-26 22:26:00, Updated : 2017-09-26 22:37:14, Count : 536
চলছে হিন্দু ধর্মালম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব দুর্গা পূজা। বাঙালি হিন্দু সম্প্রদায়ের বড় ধর্মীয় উৎসব দুর্গাপূজা আজ মঙ্গলবার ষষ্ঠী পূজার মধ্যদিয়ে শুরু হয়েছে। আগামীকাল মহাসপ্তমী।

পূজার দিনগুলোয় নতুন পোশাকের সঙ্গে মিলিয়ে চুলের স্টাইলটা কেমন হবে, তা নিয়েই চলতে থাকে নানা জল্পনাকল্পনা। পূজার পাঁচ দিনে একেক রকম পোশাকের সঙ্গে চুলের সাজটাও তো মানানসই হওয়া চাই। সব সময় হয়তো পারলারে গিয়ে চুল বাঁধার সময় হবে না। বাড়িতেই চুলের সাজে আনতে পারেন বৈচিত্র্য।

ঐতিহ্যবাহী শাড়িতে আধুনিক সাজ
গরদ বা সিল্কের ঐতিহ্যবাহী শাড়ির সঙ্গে পরতে পারেন দেশি নকশায় তৈরি গয়না। সামনের দিকের চুলগুলোকে টেনে নিয়ে উঁচু করে পনিটেল বাঁধুন। হট রোলার দিয়ে পনিটেলে বাঁধা চুলগুলোতে হালকা ঢেউ খেলানো ভাব আনুন। এবার চুলগুলো উল্টে নিয়ে ক্লিপ দিয়ে আটকে দিন। গোড়ার দিকে বের হয়ে থাকা বাকি চুলগুলোতে আঙুল দিয়ে ঢেউ খেলানো ভাব এনে ছড়িয়ে দিন। এই ধরনের চুলের সাজে চোখের ওপর-নিচে একটু টেনে গাঢ় করে কাজল দিন।

কোঁকড়া চুলে...
সালোয়ার-কামিজের সঙ্গে সামনের চুলগুলোকে পাফ করে নিতে পারেন। এবার ব্যাককোম্ব করে পেছনে পনিটেল বেঁধে পেছনের চুলগুলোকে ক্রিম্প করে দিন। মুখে ফেস পাউডার লাগিয়ে হালকা ব্লাশন পরুন। পোশাকের রঙের সঙ্গে মিলিয়ে চোখের সাজে ব্যবহার করতে পারেন গাঢ় রঙের আইশ্যাডো। কানে পরতে পারেন অ্যান্টিকের দুল।

হালকা রঙে জমকালো
সাদার মতো হালকা কোনো রঙের শাড়িতেও একটু জমকালো ভাব আনতে পারেন। চুলগুলো পনিটেল বেঁধে রোলার দিয়ে কার্ল করে নিতে পারেন। এ ধরনের চুলের সাজে গলা, কান আর হাতে পরতে পারেন পাথর বসানো জমকালো নকশার গয়না।

পোশাকে দেশীয় আমেজ আর সাজে পাশ্চাত্যের ছোঁয়া-এমন নতুন লুকে চমকে দিতে পারেন সবাইকে। এ ক্ষেত্রে হালকা সবুজ বা সোনালি রঙের মসলিন বা টিস্যু শাড়ি বেছে নিতে পারেন। ব্লাউজে থাকতে পারে কমলা আর গাঢ় নীলের মতো উজ্জ্বল রঙের ছোঁয়া। চোখের সাজেও নীল রঙের ব্যবহারে আনতে পারেন স্মোকি ভাব। ঠোঁটের লিপস্টিকে আনতে পারেন কমলা আর লালের সমন্বয়। এবার চুলে মুজ লাগিয়ে বব কাটের আদলে ভেতরের দিকে ঢুকিয়ে ক্লিপ আটকে নিন। এ ধরনের চুলের সাজে আলাদা করে গয়না না পরাই ভালো।

বেণির বাঁধন
রাতের সাজে বেছে নিতে পারেন সংস্কৃত হরফের নকশায় তৈরি এই শাড়িটি। এ ধরনের শাড়ির সঙ্গে চুলগুলোকে একটু উঁচু করে পনিটেল করে নিন। পনিটেল করা চুলগুলোকে দুই ভাগ করে নিন। এবার এক ভাগ চুল দিয়ে আলতো বেণি করে নিন, আরেক ভাগ চুল পেঁচিয়ে মুড়িয়ে নিন বেণির গোড়ায়। শাড়ির রঙের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে পরতে পারেন নেটের তৈরি লম্বা হাতার ব্লাউজ।

স্কার্টে খোলা চুল
দিনের বেলা বা বিকেলে বের হলে স্কার্ট-টপ পরতে পারেন। এক পাশে সিঁথি কেটে সামনের চুলগুলোকে টুইস্ট করে বেঁধে নিন। ব্লো ড্রাই করে ছেড়ে দিন পেছনের চুলগুলোকে। এই ধরনের চুলের সঙ্গে চোখে ঘন করে কাজল দিয়ে মাশকারা লাগান। চোখকে আরও আকর্ষণীয় করে তুলতে কৃত্রিম আইল্যাশও পরতে পারেন। পোশাকের সঙ্গে মিলিয়ে লাগাতে পারেন ম্যাট কোনো লিপস্টিক।